Main Menu

ফেসবুক আইডি হ্যাক হলে কি করবেন!

আমরা বলতে গেলে সবাই ফেসবুক চালাই। কারণ ফেসবুক দিয়ে কারো সাথে যোগাযোগ করা যেমন সহজ তেমনি ফেসবুক অন্য সোশ্যাল মিডিয়াগুলো থেকে অনেক বেশি সুরক্ষিত। ফেসবুকের সিকিউরিটি বাইপাস করে কারো ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক করা প্রায় অসম্ভব। কিন্তু তারপরও ইউজার এর নানা ভুলের কারণে ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক হতেই পারে। আর এই আধুনিক যুগে ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক হয়ে যাওয়া থেকে ভয়ংকর সমস্যার কথা চিন্তাই করা যায় না।

কারণ ফেসবুকেই আমাদের গোপন এবং প্রয়োজনীয় সব ডাটা থাকে। যেগুলো ভুল কারো হাতে পরলে আমাদের অনেক বড় ক্ষতি হয়ে যেতে পারে। কারণ এই ডাটাগুলো দিয়ে আপনার নামে ভুল খবর ছড়ানো সম্ভব। বা এর চেয়েও বড় ক্ষতি হয়ে যেতে পারে। তবে অনেক ধরনের সিকিউরিটি ব্যবস্থা নেয়ার পরও আপনার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক হয়ে যেতে পারে। এরকম পরিস্থিতিতে পরলে আপনি কি করবেন? তাই আমি এই টিউনে দেখাব ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক হলে কি কি পদক্ষেপ গ্রহণ করবেন।

কিভাবে বুঝবেন আপনার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক হয়েছে?

আপনার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক হয়েছে কিনা সেটি আগে বোঝা দরকার। কারণ অনেক সময় হ্যাকার ফেসবুক আইডি এর পাসওয়ার্ড হাতিয়ে নিয়ে রেখে দেয়। এবং পরে সেটা দিয়ে কাজ করে। তাই আপনাকে আগে খুঁজে বের করতে হবে আপনার অ্যাকাউন্ট হ্যাক হয়েছে কিনা। যদি দেখেন যে আপনার অ্যাকাউন্ট আপনি অ্যাক্সেস করতে পারছেন না এবং ফেসবুক আইডি এর ওয়ালে আইডি হ্যাকিং নিয়ে কোন টিউন দেয়া হয়েছে তাহলে বুঝে নিতে হবে আপনার ফেসবুক আইডি হ্যাক হয়ে গেছে।

কিন্তু যদি এরকম কিছু না দেখেন, তাহলে কিভাবে বুঝবেন? যদি আপনার মনে হয় যে আপনার অ্যাকাউন্ট হ্যাক হয়ে থাকতে পারে তাহলে দেরি না করে ফেসবুক এর সেটিংস-এ যান। কম্পিউটারের ব্রাউজার দিয়ে ফেসবুক এর সেটিংস-এ ঢুকলে ভাল হবে। তারপরে সেখান থেকে “Security and Login” নামের অপশনটিতে ক্লিক করলেই সবার উপরে দেখতে পাবেন “Where You’re Logged In” নামের একটি অপশন। সেটির নিচে একটি লিস্ট দেখতে পাবেন। কি কি ডিভাইস দিয়ে আপনার ফেসবুক আইডিতে ঢুকা হয়েছে তার লিস্ট এব কোন কোন ডিভাইস এই আইডি এখন ব্যবহার করছে তার লিস্ট ও দেখতে পাবেন।

এবার “See More” অপশনে ক্লিক করে পুরো লিস্ট দেখে নিন। দেখুন এই লিস্ট এ অপরিচিত কোন ডিভাইস আছে কিনা। যদি থাকে তাহলে দেরি না করে নিচের পদক্ষেপগুলো গ্রহণ করুন।

ফেসবুক অ্যাকাউন্ট এর পাসওয়ার্ড পরিবর্তন করুন

যদি দেখেন যে আপনার আইডি তে অপরিচিত কোন ডিভাইস থেকে লগ-ইন করা হয়েছে তাহলে সবার প্রথমে আপনার ফেসবুক আইডি এর পাসওয়ার্ড পরিবর্তন করে শক্তিশালী এবং ইউনিক একটি পাসওয়ার্ড দিন। পাসওয়ার্ড পরিবর্তন করার জন্য ফেসবুক এর সেটিংস থেকে “Security and Login” নামের অপশনে যান এবং সেখান থেকে পাসওয়ার্ড পরিবর্তন করুন।

পাসওয়ার্ড পরিবর্তন করার পর আগের “Where You’re Logged In” অপশন থেকে সব ডিভাইস কে লগ-আউট করে দিন।

ফেসবুক আইডিতে ঢুকতে না পারলে পাসওয়ার্ড রিসেট করুন

যদি কেউ আপনার ফেসবুক আইডি হ্যাক করে থাকে তাহলে আপনার ফেসবুক আইডি এর পাসওয়ার্ড চেঞ্জ করে দিতে পারে। এমন অবস্থায় আপনি আপনার অ্যাকাউন্টে লগ-ইন করতে পারবেন না। তাই আপনি পাসওয়ার্ড রিসেট করার চেষ্টা করতে পারেন। অনেক সময় যদি আপনার আইডি অনেক গুলো সিকিউরিটি সিস্টেম থাকে তাহলে হ্যাকার সবগুলো পরিবর্তন করার আগেই আপনি আপনার আইডি এর পাসওয়ার্ড রিসেট করে ফেলতে পারেন। এর জন্য প্রথমেই ফেসবুক.কম এ যান তারপরে পাসওয়ার্ড এর ঘরের নিচের “Forget your Password?” নামের অপশনে ক্লিক করুন। তাহলে নিচের মত একটি পেজ দেখতে পাবেন।

এখান থেকে আপনার ইমেইল বা ফোন নাম্বার দিয়ে আপনার আইডি খুঁজে বের করুন। তারপরে যেই ইমেইল বা ফোন নাম্বার দিয়েছেন সেখানে একটি কোড যাবে সেটি যদি আপনি এখানে একটি বক্স আছে সেখানে দিতে পারেন তবেই আপনি আপনার আইডি এর পাসওয়ার্ড চেঞ্জ করতে পারবেন।

কমপ্রোমাইজড অ্যাকাউন্ট রিপোর্ট করুন

আপনার অ্যাকাউন্ট যদি হ্যাক হবার পাশাপাশি আপনার বন্ধুদের কাছে বিভিন্ন লিঙ্ক পাঠাতে থাকে তাহলে আপনি আপনার অ্যাকাউন্ট কে কমপ্রোমাইজড হিসেবে ফেসবুক এর কাছে রিপোর্ট করতে পারেন। এটি শুধুমাত্র তখনই করুন যখন আপনার অ্যাকাউন্ট এ আপনার আর কোন অ্যাক্সেস না থাকে। যদি এমন অবস্থায় পড়েন তাহলে এই লিঙ্ক এ যান।

তারপরে “My Account is Compromised” লেখা বাটনে ক্লিক করুন তারপরে আপনার ইমেইল বা ফোন নাম্বার দিয়ে আপনার আইডি খুঁজে বের করুন। তারপর ফেসবুক আপনার কাছে কিছু প্রমাণ চাবে। যদি সেগুলো ঠিকভাবে দিতে পারেন তবে আপনি আপনার আইডি ফেরত পাবেন।

ফেসবুক আইডি থেকে অবাঞ্ছিত অ্যাপ ডিলিট করে দিন

আপনার ফেসবুক আইডিতে আপনি নানা কারণে অনেক ধরনের অ্যাপের পারমিশন দিতে পারেন। তবে অনেক সময় এই অ্যাপও আপনার আইডি হ্যাক এর জন্য দায়ী হতে পারে। তাই ফেসবুক এর যেই অ্যাপগুলো আপনার দরকার নেই সেগুলো তাড়াতাড়ি রিমোভ করে দিন। এর জন্য ফেসবুক এর সেটিংস থেকে আপ্পস নামের অপশনটিতে যেতে হবে। সেখান থেকে অপ্রয়োজনীয় অ্যাপগুলো রিমোভ করে দিন।



« (Previous News)



Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *