Main Menu

চালু হলো দেশের সবচেয়ে বড় করোনা হাসপাতাল

অনলাইন ডেস্ক :

রাজধানীর মহাখালীতে চালু হলো দেশের সবচেয়ে বড় করোনা হাসপাতাল ‘ডিএনসিসি ডেডিকেটেড করোনা হাসপাতাল’। রবিবার দুপুর ১২ টার দিকে হাসপাতালটি উদ্বোধন করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক।

হাসপাতালটি পরিচালনা করবে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী এবং সার্বিক সহযোগিতা করবে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

করোনা সংক্রমণ পরিস্থিতি বিবেচনায় ডিএনসিসি ডেডিকেটেড কোভিড-১৯ হাসপাতালটি ৫০ শয্যার আইসিইউ সুবিধাসহ আংশিকভাবে চালু হলো। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ আশা করছে, দক্ষ জনবল নিয়োগ ও অন্যান্য সুযোগ-সুবিধার ব্যবস্থা করে আগামী ২৯ এপ্রিলের মধ্যে এটিকে পূর্ণাঙ্গভাবে চালানো সম্ভব হবে।

গতকাল হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল একেএম নাসির উদ্দিন জানিয়েছেন, আশা করছি আগামী ২৯ এপ্রিলের মধ্যে এটিকে পূর্ণভাবে চালাতে পারব।

সূত্র জানায়, ডিএনসিসি ডেডিকেটেড কোভিড-১৯ হাসপাতালটি পূর্ণাঙ্গ হলে রোগীদের জন্য ২১২টি আইসিইউ, ২৫০টি এইচডিইউ ও ৫৪০টি আইসোলোটেড হাই কেয়ার রুম থাকবে। ৫০০ জনেরও বেশি করোনা রোগীকে একসঙ্গে উচ্চ-প্রবাহের অক্সিজেন সরবরাহ করা যাবে।

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরশনের (ডিএনসিসি) মহাখালী কাঁচাবাজারের ছয় তলা বিশিষ্ট এক লাখ ৮০ হাজার ৫৬০ বর্গফুট আয়তনের ফাঁকা ভবনে এই হাসপাতাল চালু হলো। এতদিন মার্কেটটি করোনা আইসোলেশন সেন্টার এবং বিদেশগামী যাত্রীদের করোনা পরীক্ষার ল্যাব হিসেবে ব্যবহৃত হয়েছে। এখন করোনা হাসপাতালের কার্যক্রম শুরু হলেও পৃথকভাবে ওই সেবা কার্যক্রমগুলো চলবে।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *